রবিবার, জুন ২৬, ২০২২
Homeকৃষিপাট থেকে স্যানিটারি প্যাড;আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেলেন মহেশখালীর পুত্রবধূ

পাট থেকে স্যানিটারি প্যাড;আন্তর্জাতিক পুরস্কার পেলেন মহেশখালীর পুত্রবধূ

পাটের সেলুলোজভিত্তিক স্যানিটারি প্যাড তৈরির প্রযুক্তি উদ্ভাবনের জন্য ৪র্থ ইনোভেশন পিচ প্রতিযোগিতায় গ্র্যান্ড পুরষ্কার জিতেছেন আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা কেন্দ্র, বাংলাদেশের (আইসিডিডিআর’বি) সহকারী বিজ্ঞানী ফারহানা সুলতানা।

আমেরিকান সোসাইটি ফর ট্রপিক্যাল মেডিসিন অ্যান্ড হাইজিন (এএসটিএমএইচ) এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করে।

এবারের আয়োজনের প্রতিপাদ্য ছিল—মহামারি ও জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবিলায় স্বাস্থ্য সম্মত বিশ্ব সম্প্রদায়।

আইসিডিডিআর’বি তাদের ফেসবুক পেজের মাধ্যমে জানিয়েছে, পুরস্কার অংক হিসেবে ফারহানা সুলতানাকে ৫ হাজার মার্কিন ডলার দিয়েছে এএসটিএমএইচ। একইসঙ্গে তিনি ২০২২ সালে অনুষ্ঠিতব্য ৫ম ইনোভেশন পিচ প্রতিযোগিতায় বিচারক হবেন।

বাংলাদেশ জুট মিলস কর্পোরেশনের বৈজ্ঞানিক উপদেষ্টা ডঃ মোবারক আহমেদ খানের সঙ্গে সমন্বয় করে ফারহানা সুলতানা ম্যানুয়ালি পাটের সেলুলোজভিত্তিক ডিসপোজেবল প্যাড তৈরি করে এর পরীক্ষা চালিয়েছেন।

পাটের সেলুলোজ একটি নতুন উপাদান এবং বর্তমানে দেশে এমন প্যাড তৈরির কোনো মেশিন নেই যা এর উৎপাদনে সাহায্য করবে।

আইসিডিডিআর’বি জানিয়েছে, পুরস্কারের অর্থ দিয়ে সুলতানা আরও অধিক সংখ্যক প্যাড উৎপাদনের জন্য পরীক্ষা চালাবেন, একটি ব্যবসায়িক পরিকল্পনা তৈরি করবেন, নিজের দক্ষতা বৃদ্ধিতে কাজ করবেন এবং বর্জ্য ব্যবস্থাপনার বিভিন্ন উপায় খুঁজবেন।

তিনি এর আগে কচুরিপানা থেকে পরিবেশবান্ধব স্বাস্থ্যসম্মত স্যানিটারি ন্যাপকিন উদ্ভাবন করে বেশ সাড়া ফেলেছিলেন।

বিজ্ঞানী ফারহানা সুলতানা মহেশখালীর কালারমার ছড়া উত্তর নলবিলার সন্তান ড. মোহাম্মদ হোসেন বিধু’র সহধর্মিণী।

তার এই উদ্ভাবন দেশের সকল নারীর জন্য স্যানিটারি ন্যাপকিনের সহজলভ্য সুফলতা বয়ে আনবে বলে আশাবাদী।

এই ক্যাটাগরির অন্যান্য খবর

জনপ্রিয় খবর

error: Content is protected !!